প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

মঙ্গল শোভাযাত্রা ‘হারাম’, বর্জনের আহ্বান হেফাজতের

১৩ এপ্রিল ২০১৮, ৪:২১:৩৬

ঢাকা, ১৩ এপ্রিলকারেন্ট নিউজ বিডি : বর্ষবরণ উৎসব পহেলা বৈশাখে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা ইনস্টিটিউট থেকে বের হওয়া মঙ্গল শোভাযাত্রাকে ‌’হারাম’ ঘোষণা করে মুসলিমদের এটি বর্জনের আহ্বান জানিয়েছে কওমি মাদ্রাসাকেন্দ্রীক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম।

পহেলা বৈশাখের একদিন আগে বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে এই আহ্বান জানান কট্টর ইসলামী সংগঠনটির মহাসচিব জুনাইদ বাবুনগরী। পহেলা বৈশাখ উদযাপনকে ‘ঈমান-আক্বীদাবিরোধী হিন্দুয়ানী শিরকী অপসংস্কৃতি’ দাবি করে তা বন্ধ করতে সরকারের কাছে দাবি জানান তিনি।

হেফাজতের পক্ষ থেকে দেওয়া বিবৃতি জুনাইদ বাবুনগরী বলেন, ‌’নতুন বছরের প্রথম দিনে নারী-পুরুষের মুখে উল্কি আঁকা, বড়বড় পুতুল, হুতুম পেঁচা, হাতি-কুমির-সাপ-বিচ্ছু ও ঘোড়াসহ বিভিন্ন জীব-জন্তুর মুখোশ পরা প্রাপ্তবয়স্ক নারী-পুরুষ একসঙ্গে অশালীন পোশাক পরে অশ্লীল ভঙ্গিতে ঢোল বাদ্যের তালে তালে নৃত্য করে র‌্যালি করার হিন্দুয়ানি যে রীতি রাষ্ট্রীয়ভাবে মুসলমানদের ওপর জোর করে চালু করা হচ্ছে, তা ইসলামের দৃষ্টিতে সম্পূর্ণ হারাম।’

‘ভিন্ন ধর্মের’ রীতিনীতি দেশের শতকরা ৯২ জন মুসলমানের ঘাড়ে চাপিয়ে দেওয়ার অপচেষ্টা চালালে পরিণতি শুভ হবে না  উল্লেথ করে হেফাজতের মহাসচিব বলেন, ‘ইসলামি তাহজীব-তামাদ্দুন, সভ্যতা-সংস্কৃতি ধ্বংস করে বিজাতীয় কালচার মুসলমানরা মেনে নিতে পারে না।স্কুল কলেজের মুসলিম শিক্ষার্থীদেরকে ইমান আক্বিদাবিরোধী সংস্কৃতি পালনে রাষ্ট্র কখনো বাধ্য করতে পারে না। এটা সংবিধানের মৌলিক নীতিমালা বিরোধী।’

নববর্ষ উদযাপনে মঙ্গল শোভাযাত্রা এরই মধ্যে বৈশ্বিক স্বীকৃতি পেয়েছে। জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান এবং সংস্কৃতি বিষয়ক সংগঠন ইউনেস্কো একে বিশ্ব ঐতিহ্যের অংশ হিসেবে ঘোষণা করেছে।এবারও মঙ্গল শোভাযাত্রার প্রস্তুতি শেষ হয়েছে। সারা দেশেই এই মিছিল বের করা হয়। দেশের মূল ধারার সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকেই মঙ্গল শোভযাত্রা বের করার নির্দেশ আছে সরকারের।

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: