প্রচ্ছদ / বরিশাল / বিস্তারিত

রাজাপুরে লিমনের বাড়িতে অগ্নিসংযোগ: আটক ১

৯ এপ্রিল ২০১৮, ৯:২৪:০৪
ঢাকা, ০৯ এপ্রিল, কারেন্ট নিউজ বিডি : র‌্যাবের গুলিতে পা হারানো আলোচিত লিমন হোসেনের ঝালকাঠির রাজাপুরের সাতুরিয়ার গ্রামের ইদুর বাড়ি এলাকার বাড়িতে আগুন দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষরা আগুন দিয়ে রান্নাঘরের কিছু অংশ পুড়িয়ে দেয়। রোববার ভোররাতে এ ঘটনা ঘটে ।

এছাড়া জমি নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষরা বাড়ির সামনের রাস্তার পাশে লিমনদের নিমার্নাধীন ভবনের পিলারের রড কেটে ফেলে দেয়াল ভাঙচুর ও মজুদ রাখা রড ছিনিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ করছে তার পরিবার। বাধা দিতে গিয়ে আহত হয়েছে লিমনের বাবা তোফাজ্জেল হোসেন। পুলিশ এ ঘটনায় ফিরোজ হোসেন (৪০) নামে এক যুবককে আটক করেছে।

লিমনের বাবার অভিযোগ, তাদের পৈত্রিক জমিতে ভবন নির্মান কাজ শুরু করলে প্রতিপক্ষ আঃ হাই ও হুমায়ুন কবির লোকজন নিয়ে বাধা দেয়। এ নিয়ে কয়েকদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিলো। শনিবার পুনঃরায় কাজ শুরু করলে রোববার ভোররাতে প্রতিপক্ষরা নির্মানাধীন পাকা ভবনের দেয়াল ভেঙে কলমের রড কেটে ফেলে এবং ভবন নির্মানের জন্য মজুদ রাখা ১৭শ কেজি রড ও ৪টি ড্রামসহ সরঞ্জাম নিয়ে যায় এবং মালপত্র পাশের খালে ফেলে দেয় প্রতিপক্ষরা।

লিমনের মা হেনোয়ারা বেগম অভিযোগ করেন, সসম্প্রতি তাঁরা নিজেদের জমিতে আধাপাকা একটি বাড়ি নির্মাণের কাজ শুরু করে। সেই থেকেই প্রতিপক্ষের লোকজন লিমনদের কাজে বাঁধা দিয়ে আসছিল। আধাপাকা ঘরের এক পাশের দেয়াল ও ৯টি পিলার নির্মাণের কাজ শেষ হয়। প্রতিপক্ষরা শনিবার দিবাগত রাতে লোকজন নিয়ে দেয়াল ভেঙে পিলারের রড কেটে নিয়ে যায়। এসময় প্রতিপক্ষরা লিমনদের বসতঘর ও রান্নাঘরে অগ্নিসংযোগ করে। এতে রান্নাঘরটি কিছু অংশ পুড়ে যায়। আগুন দেখে লিমনের বাবা তোফাজ্জেল হোসেন ও মা হেনোয়ারা বেগম চিৎকার শুরু করেন। চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা এসে পানি ঢেলে আগুন নিভিয়ে ফেললে বসতঘরের কোন ক্ষতি হয়নি।

অভিযুক্ত আব্দুল হাই ও হুমায়ুন কবির অগ্নিসংযোগের অভিযোগ অস্বীকার করে দাবি করেন, তাদের ক্রয়কৃত জমিতে লিমনের বাবা জোড় করে ভবন নির্মান করতে চাইছে তাতে তারা বাধা দিয়েছে মাত্র। ওই জমি নিয়ে আদালতে মামলা এবং স্থানীয়ভাবে শালিস চলছে। রাজাপুর থানার ওসি শামসুল আরেফিন বলেন, খবর পেয়ে রোববার সকালে পুলিশ গিয়ে একজনকে আটক করেছে। বিষয়টি তদনন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। এ ঘটনায় লিমনের মা হেনোয়ারা বেগম রাজাপুর থানায় মামলার প্রস্ততি নিচ্ছে।

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: