এবার ‘আনসেন্ড’ সুবিধা আনছে ফেসবুক!

৯ এপ্রিল ২০১৮, ৪:৫০:০২

ঢাকা, ০৯ এপ্রিলকারেন্ট নিউজ বিডি : এবার সবার জন্য পাঠানো মেসেজ ‘আনসেন্ড’ করে দেওয়ার সুবিধা আনতে যাচ্ছে ফেসবুক।

সূত্রমতে, আগামী কয়েক মাসের মধ্যে এই ‘আনসেন্ড’ ফিচার আনবে ফসবুক। তবে এউ ফিচার কীভাবে কাজ করবে তা নিয়ে বিস্তারিত কিছু এখনও জানা যায়নি। বর্তমানে মেসেঞ্জারে একটি ‘সিক্রেট কনভারসেশন’ মোড রয়েছে, এতে মেসেজের জন্য একটি নির্দিষ্ট সময়সীমা ঠিক করে দেওয়া যায়। ওই সময়ের পর মেসেজগুলো নিজে নিজেই মুছে যায়। তবে, এগুলো মুছে যাওয়ার আগে সব পক্ষই নোটিফিকেশন পায়।

ফেসবুকের এক মুখপাত্র প্রযুক্তি সাইট ভার্জ–কে বলেন, আমরা এই ফিচার নিয়ে কয়েকবার আলোচনা করেছি। এখন আমরা বড় পরিসরে মেসেজ মুছে দেওয়ার একটি ফিচার আনতে যাচ্ছি। এর জন্য কিছু সময় লাগতে পারে। এটি আরও আগেই আমাদের করা উচিৎ ছিল– আর এটি না করায় আমরা দুঃখিত।

এর আগে ফেসবুক তাদের অধীনস্থ অন্যান্য প্ল্যাটফর্মে ‘আনসেন্ড’ ফিচার এনেছে । ২০১৭ সাল থেকে ফেসবুক মালিকানাধীন সংকেতায়িত মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপে আনসেন্ড ফিচার রয়েছে। এক্ষেত্রে নির্দিষ্ট সময় পর মেসেজটি শুধু মুছে যায় এমনটি নয়। এতে ‌‌‌‘এই মেসেজ মুছে ফেলা হয়েছে’ এমন একটি বার্তা দেখানো হয়। সাবেক কর্মী আর প্রতিষ্ঠানটির বাইরের কারও কাছে জাকারবার্গ–এর পাঠানো মেসেজ গ্রাহকদের ইনবক্স থেকেও মুছে দিয়েছে ফেসবুক। আর বিশ্বের সবচেয়ে বড় সামাজিক মাধ্যমটি নিজেই এমন কথা স্বীকার করেছে বলে সম্প্রতি খবর প্রকাশ করে প্রযুক্তি সাইট টেকক্রাঞ্চ। এরপরই সবার জন্য মেসেঞ্জারে আনসেন্ড ফিচার আনতে ফেসবুকের ইচ্ছা প্রকাশ পেল।

২০১৪ সালে সনি পিকচার্স হ্যাকিংয়ের ঘটনায় প্রতিষ্ঠানটির মুক্তি না দেওয়া একটি সিনেমা আর গোপন তথ্য ফাঁস হয়ে গিয়েছিল। সে বিষয়ের কথা উল্লেখ করে ফেসবুকের পক্ষ থেকে সম্প্রতি বলা হয়, ‘২০১৪ সালে সনি পিকচার্স–এর ইমেইল হ্যাকিংয়ের পর আমাদের কর্মকর্তাদের যোগাযোগ সুরক্ষায় আমরা কিছু পদক্ষেপ নিয়েছিলাম। এর মধ্যে মেসেঞ্জারে জাকারবার্গের মেসেজ কতক্ষণ থাকবে সে সময়সীমা সীমিত করে দেওয়ার পদক্ষেপও ছিল। মেসেজ সংরক্ষণে আমাদের জন্য থাকা আইনি বাধ্যবাধকতার পুরোটা মেনেই আমরা এ কাজ করেছি।’ যদিও টেকক্রাঞ্চ–এর প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে যে ফেইসবুকের নীতিমালায় কোনো কনটেন্ট প্রতিষ্ঠানটির ‘কমিউনিটি স্ট্যান্ডার্ড’ লঙ্ঘন না করলে ব্যবহারকারীর অ্যাকাউন্ট থেকে তা সরানোর অধিকার দেওয়া হয় না।

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: